বিনিয়োগকারীদের পছন্দের শীর্ষে ওয়ালটন।

শনিবার ০৩ অক্টোবর ২০২০, ১৮ আশ্বিন ১৪২৭

গত সপ্তাহজুড়ে পুঁজিবাজারের বিনিয়োগকারীদের কাছে বিনিয়োগের ক্ষেত্রে পছন্দের শীর্ষে ছিল নতুন তালিকাভুক্ত ওয়ালটন হাইটেক পার্কের শেয়ার। ফলে সপ্তাহজুড়ে প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) কোম্পানিটির শেয়ার মূল্যে বড় ধরনের উত্থান ঘটেছে।

বিনিয়োগকারীদের একটি অংশের আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে চলে আসায় এক শ্রেণির বিনিয়োগকারী কোম্পানিটির শেয়ার বিক্রি করতে চাননি। ফলে সপ্তাহজুড়ে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ২ কোটি ৭৮ লাখ ৬০ হাজার টাকার শেয়ার। আর প্রতি কার্যদিবসে গড়ে লেনদেন হয়েছে ৫৫ লাখ ৭২ হাজার টাকা।

অপরদিকে সপ্তাহজুড়ে ওয়ালটনের শেয়ার মূল্য বেড়েছে ৪৩ দশমিক ৫৩ শতাংশ। আর টাকার অঙ্কে বেড়েছে ২৪৬ টাকা ৮০ পয়সা।

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে কোম্পানিটির প্রতিটি শেয়ারের দাম দাঁড়িয়েছে ৮১৩ টাকা ৮০ পয়সা, যা সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে ছিল ৫৬৭ টাকা।

শেয়ারের এমন দাম বাড়ার মূল কারণ বাজারে কোম্পানিটির স্বল্প সংখ্যক শেয়ার থাকা। ৩০২ কোটি ৯২ লাখ ৮০ হাজার টাকা পরিশোধিত মূলধনের এ কোম্পানিটির মোট শেয়ার সংখ্যা ৩০ কোটি ২৯ লাখ ২৮ হাজার ৩৪৩টি।

এর মধ্যে ৯৯ দশমিক শূন্য ৩ শতাংশ শেয়ারই রয়েছে উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের হাতে। বাকি শেয়ারের মধ্যে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে আছে মাত্র দশমিক ৫১ শতাংশ শেয়ার। প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে আছে দশমিক ৪৬ শতাংশ শেয়ার।

ওয়ালটনের পরেই শেষ সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের পছন্দের তালিকায় ছিল এসইএমএল লেকচার ইক্যুইটি ম্যানেজমেন্ট ফান্ড। সপ্তাহজুড়ে এই ফান্ডটির দাম বেড়েছে ২৮ দশমিক ৫৭ শতাংশ। এর পরেই রয়েছে প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল। সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম বেড়েছে ২৮ দশমিক ৪১ শতাংশ।

এছাড়া শেষ সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহের শীর্ষে থাকা ১০ প্রতিষ্ঠানের মধ্যে পিএইচপি ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ২৮ দশমিক ৩০ শতাংশ, ইবিএল ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ২৬ দশমিক ৩২ শতাংশ, ইবিএল এনআরবি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ২৫ দশমিক ৪৫ শতাংশ, ট্রাস্ট ব্যাংক ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ২১ দশমিক ৪৩ শতাংশ, ইউনিয়ন ক্যাপিটালের ২০ দশমিক ২৭ শতাংশ, সিএপিএম আইবিবিএল ইসলামিক মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ১৯ দশমিক ৬৪ শতাংশ এবং হামিদ ফেব্রিক্সের ১৯ দশমিক ১৪ শতাংশ দাম বেড়েছে।